রবিবার, ০১ নভেম্বর ২০২০, ০৩:৩৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
মুন্সীগঞ্জে নৌ পুলিশের অভিযানে ৩ লক্ষ টাকার কারেন্ট জাল ও মা ইলিশ জব্দ মুসলিমদের জোরপূর্বক উলঙ্গ করছে চীন, খাওয়াচ্ছে ‘অজ্ঞাত’ ওষুধ করোনার এই দুঃসময়ে মানুষ যখন মানুষের পাশে তখন মানুষের অসহায়ত্বের সুযোগ নিচ্ছেন ফার্মেসীর কিছু সংখ্যক লোভী ব্যক্তিরা বর্তমানে কিভাবে কাটছে ইউটিউব চ্যানেল থেকে টিভি চ্যানেলে আসা সেই নতুন মুখ-কমেডিয়ান মিজানের অবশেষে মুক্ত হলেন রায়হান কবির মুন্সীগঞ্জে মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার, শীর্ষ ব্যবসায়ীদের নাম ফাঁস  ওসি প্রদীপ সহ ৩ জনকে রিমান্ডে নেয়া হয়েছে ঢাকা বিমান বন্দরের ফ্লোরে বসে আবুধাবি ফেরত যাত্রীদের বিক্ষোভ! মুন্সীগঞ্জে জেলা যুবলীগের উদ্যােগে ১৫আগষ্ট উপলক্ষে শোক র‌্যালী রাম মন্দির বানানোর নির্দেশ দেওয়া প্রধান বিচারপতি আজ করোনায় আক্রান্ত রঞ্জন গগৈ
নোটিশ
দৈনিক জাগো বিবেক - প্রকাশক ও সম্পাদক - মোহাম্মদ আলী রুবেল - +৯৭১৫৫৭৭৪৯৬৬৮ - সত্যের পথে নির্ভীক মোরা - আমরা সদাসর্বদা সত্য প্রচার করি

মুসলিমদের জোরপূর্বক উলঙ্গ করছে চীন, খাওয়াচ্ছে ‘অজ্ঞাত’ ওষুধ

জাগো বিবেক ডেক্স / ১২৩ বার
আপডেট সময় : বুধবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১২:৩৪ অপরাহ্ন

মুসলিমদের জোরপূর্বক উলঙ্গ করছে চীন, খাওয়াচ্ছে ‘অজ্ঞাত’ ওষুধ

মুসলিমদের জোরপূর্বক উলঙ্গ করছে চীন, খাওয়াচ্ছে ‘অজ্ঞাত’ ওষুধ
চীন ১০ লাখের বেশি উইঘুর মুসলিমকে বন্দি করেছে বলে জাতিসংঘের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়। ছবি সংগৃহীত
করোনার প্রকোপের মধ্যে চীনের শিনজিয়াং প্রদেশে বন্দিশালায় উইঘুর মুসলিমদের ‘অজ্ঞাত’ ওষুধ খাওয়াচ্ছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। সেইসঙ্গে মুসলিমদের জোরপূর্বক উলঙ্গ করে জীবাণুনাশক স্প্রে করা হচ্ছে।

বন্দিশালায় আটককৃতদের অভিযোগ, প্রতি সপ্তাহে তাদের শরীরে এমন জীবাণুনাশক স্প্রে করা হয়, তাতে মনে হয় তাদের চামড়া ‘খসে যাবে’। সেইসঙ্গে তাদের জোর করে অজ্ঞাত ওষুধ খাওয়ানো হচ্ছে।

সোমবার বার্তা সংস্থা এপি’র প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, করোনা ভাইরাসের চিকিৎসা হিসেবে শিনজিয়াংয়ের কিছু বাসিন্দাদেরও জোরপূর্বক চীনের ‘ট্র্যাডিশনাল’ ওষুধ খাওয়ানো হচ্ছে। যদিও এসব ওষুধ বৈজ্ঞানিকভাবে অসুস্থতার বিরুদ্ধে কার্যকর হিসাবে প্রমাণিত হয়নি।

বন্দিশালায় আটক এক নারী এপি’কে বলেন, ডজন খানেক উইঘুরদের সঙ্গে তাকে একটি সেলে স্থানান্তর করা হয়, সেখানে প্রতি সপ্তাহে গার্ডরা যখন জীবনুনাশক স্প্রে করে তখন তাদের উলঙ্গ হতে হয়।

শিনজিয়াংয়ে করোনার ৮০০ এর বেশি রোগী শনাক্ত হওয়ার পর থেকে ৪৫ দিনের লকডাউন চলছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, চীনের যেকোন অঞ্চলের তুলনায় এই অঞ্চলে লকডাউনে কড়া বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। অনেক বাসিন্দাদের জোর করে ‘ট্র্যাডিশনাল’ পানীয় ওষুধ খাওয়ানো হচ্ছে, অন্যদের ঘরের মধ্যে বন্দি করে রাখা হচ্ছে। কোয়ারেন্টাইনে রাখতে বাধ্য করা হচ্ছে ৪০ দিনের বেশি দিন।

খবরে আরো বলা হয়েছে, শিনজিয়াংয়ে সাদা বোতলে করে যেসব ওষুধ সরবরাহ করা হচ্ছে, তা কী থেকে তৈরি জানা যায়নি।

সূত্র দৈনিক ইত্তেফাক


এ জাতীয় আরো খবর
Theme Created By ThemesDealer.Com